• শনিবার   ১৬ অক্টোবর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৩০ ১৪২৮

  • || ০৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
পূজামণ্ডপে অরাজকতা সৃষ্টির অপচেষ্টাকারীরা পার পাবে না- প্রধানমন্ত্রী ‘কোনো সুস্থ ধর্মপ্রাণ ব্যক্তি অন্য ধর্মে আঘাত করতে পারে না’ নির্বাচন সামনে রেখে সাম্প্রদায়িক অপশক্তির মাথাচাড়া- কাদের মণ্ডপে মণ্ডপে বেজে উঠেছে বিদায়ের সুর কারিগরি ত্রুটির কারণে মোবাইল অপারেটরে ইন্টারনেট সেবা বিঘ্নিত

অস্ট্রেলিয়াকে পরমাণু সাবমেরিন প্রযুক্তি দিবে না রাশিয়া

প্রকাশিত: ৩ অক্টোবর ২০২১  

মার্কিন সরকার অস্ট্রেলিয়াকে পরমাণু শক্তিচালিত সাবমেরিন নির্মাণের প্রযুক্তি দেয়ার যে উদ্যোগ নিয়েছে আবারো তার বিরোধিতা করেছে রাশিয়া। মস্কো হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছে, আমেরিকার এই উদ্যোগ আন্তর্জাতিক পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ কর্মসূচির প্রতি মারাত্মক হুমকি।

শুক্রবার রাশিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী সের্গেই রিয়াবকভ বলেন, অকাস জোটের কাঠামোর ভেতরে থেকে অস্ট্রেলিয়া পরমাণু শক্তিচালিত সাবমেরিন তৈরির প্রযুক্তি পাবে যার ফলে দেশটি একই প্রযুক্তির অধিকারী পাঁচ দেশের অন্যতম হয়ে উঠবে। এটি আন্তর্জাতিক পরমাণু নিরস্ত্রীকরণ চুক্তির জন্য মারাত্মক চ্যালেঞ্জ। গত মাসের মাঝামাঝি দিকে আমেরিকা, ব্রিটেন ও অস্ট্রেলিয়া ত্রিপক্ষীয় একটি প্রতিরক্ষা চুক্তিতে সই করে যার কারণে চীন ও ফ্রান্স তীব্র নিন্দা এবং ক্ষোভ প্রকাশ করে।

চুক্তি অনুসারে, অস্ট্রেলিয়া অকাস জোটের আওতায় মার্কিন পরমাণু প্রযুক্তি ব্যবহার করে কমপক্ষে আটটি সাবমেরিন তৈরি করবে। ২০৩৬ সালের মধ্যে প্রথম সাবমেরিন অস্ট্রেলিয় সামরিক বাহিনী ব্যবহার করতে সক্ষম হবে। ত্রিপক্ষীয় এই চুক্তির ফলে অস্ট্রেলিয়া হতে যাচ্ছে বিশ্বের দ্বিতীয় দেশ যারা মার্কিন ‘পরমাণু সাবমেরিন প্রযুক্তি’ হাতে পাচ্ছে।

প্রথমে ফ্রান্সের কাছ থেকে সাবমেরিন কেনার চুক্তি করেছিল অস্ট্রেলিয়া কিন্তু সে চুক্তি বাতিল করে মার্কিন পরমাণু প্রযুক্তি গ্রহণে অস্ট্রেলিয়াকে বাধ্য করে আমেরিকা। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে ফ্রান্স বলেছে, পেছন থেকে ছুরি মেরেছে মার্কিন সরকার।

– দিনাজপুর দর্পণ নিউজ ডেস্ক –