• শুক্রবার   ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ২ ১৪২৮

  • || ০৮ সফর ১৪৪৩

সর্বশেষ:
১ কোটি ৪২ লাখ মানুষ দ্বিতীয় ডোজের আওতায় বঙ্গবন্ধু ছিলেন একজন খাঁটি পরিবেশ ও প্রকৃতিপ্রেমিক- পরিবেশমন্ত্রী `ঘরে ঘরে ডিজিটাল বাংলাদেশের সুফল পৌঁছে গেছে` মার্চ-এপ্রিলের মধ্যে ২৪ কোটি ডোজ ভ্যাকসিন পাব: পররাষ্ট্রমন্ত্রী `স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর উৎসব পালিত হবে তৃণমূল পর্যন্ত`

চিরিরবন্দরে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষক গ্রেফতার   

প্রকাশিত: ২৭ আগস্ট ২০২১  

দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণ ও ৫ মাসের অন্তঃসত্ত্বা করার অভিযোগে দিপু চন্দ্র রায় নামে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

শুক্রবার দুপুরে অভিযুক্ত ধর্ষককে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে। এর আগে বৃহস্পতিবার রাতে তাকে বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে চিরিরবন্দর থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃত দিপু চন্দ্র রায় চিরিরবন্দর উপজেলার পুনট্টি আশ্রমপাড়া এলাকার চন্দ্র কান্ত রায়ের ছেলে। 

চিরিরবন্দর থানার ওসি সুব্রত কুমার সরকার জানান, এই ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে এবং মামলার মুল আসামিকে গ্রেফতার করে আদালতে পাঠানো হয়েছে। ভিকটিমকে পরীক্ষার জন্য হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। মামলার এজাহারে গ্রেফতারকৃত ছাড়াও আরো ৪ জনকে আসামি করা হয়েছে। 

তারা হলেন চিরিরবন্দরের পুনট্টি পূর্বপাড়া এলাকার ব্রজেন নাথ রায়, পুনট্টি আশ্রমপাড়া এলাকার রাহুল চন্দ্র রায়, গোবিন্দপুর গ্রামের মহসীন আলী ও পুনট্টি গুচ্ছগ্রাম (গমিরাহাট) এলাকার সুমিত্রা রানী। 

এ ব্যাপারে ধর্ষণের শিকার প্রতিবন্ধীর বাবা বাদী হয়ে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন। অভিযোগে বলা হয়, ২১ মার্চ পার্শ্ববর্তী সুমিত্রা রানীর বাড়িতে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয়। গত ২১ আগস্ট রাতে অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে দিনাজপুর এম. আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে জানা যায়, প্রতিবন্ধী কিশোরী ২১ সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বা।  

– দিনাজপুর দর্পণ নিউজ ডেস্ক –