ব্রেকিং:
রংপুর প্রেস ক্লাবের দ্বি-বার্ষিক (২০২১-২০২৩) নির্বাচনে সভাপতি পদে দৈনিক যুগান্তরের রংপুর ব্যুরো প্রধান মাহাবুব রহমান হাবু ও সাধারণ সম্পাদক পদে মাছরাঙ্গা টেলিভিশনের স্টাফ রিপোর্টার রফিকুল ইসলাম সরকার বিজয়ী হয়েছেন।
  • সোমবার   ০২ আগস্ট ২০২১ ||

  • শ্রাবণ ১৭ ১৪২৮

  • || ২১ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

সর্বশেষ:
শোকাবহ আগস্ট: বাঙালির শোকের মাস শুরু পোশাক কারখানা খুলছে আজ, যে ১৫ শর্ত মানতে হবে মালিকদের গ্রামে আটকে পড়া পোশাক শ্রমিকদের চাকরি যাবে না গণটিকা কার্যক্রম সফল করতে সবাই টিকা নিন লালমনিরহাটে বাড়ি-বাড়ি গিয়ে খাদ্য সহায়তা বিতরণ

প্রেমের টানে ভারত থেকে রংপুরে তরুণী 

প্রকাশিত: ২৭ জুন ২০২১  

কাজের সন্ধানে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হুগলি জেলায় গিয়ে প্রীতি পন্ডিতের সঙ্গে পরিচয় হয় রংপুরের যুবক মিলন ও তার বন্ধু হাবিবুর রহমানের সঙ্গে। মিলন ও হাবিবুর আড়াই বছর আগে রংপুর থেকে অবৈধ পথে ভারতের পশ্চিমবঙ্গে ও হুগলিতে গিয়ে রংমিস্ত্রীর কাজ শুরু করেন। এর পর মিলনের সঙ্গে প্রীতি পন্ডিতের প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। পরে মিলন ও হাবিবুর রংপুরে ফিরে আসেন। কিন্তু থেমে থাকেনি মিলন আর প্রীতি পন্ডিতের প্রেম। 

তাদের প্রেম চিরস্থায়ী করতে বিভিন্ন যোগাযোগ প্রযুক্তির মাধ্যম হোয়াটসআ্যাপ, মোবাইল ফোন, ইমো ও ফেসবুক মেসেঞ্জার, টুইটার ব্যবহার করে হৃদয়ের সম্পর্ক এগিয়ে নিতে থাকে। এভাবে দীর্ঘ দুই বছর সম্পর্ক চলার পর অবশেষে প্রেমের টানে প্রীতি পন্ডিত তার পরিবার ও দুই দেশের সীমান্ত রক্ষীদের ফাঁকি দিয়ে রংপুরে চলে আসেন। কিন্তু অবৈধভাবে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশের দায়ে শনিবার রংপুর সদর থানার পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। 

সঙ্গে প্রেমিক মিলন মিয়া ও তার বন্ধু হাবিবুর রহমানকেও পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করে রংপুর সদর কোতোয়ালি থানার ওসি মোস্তাফিজুর রহমান জানান, মিলন, প্রীতি ও হাবিবুরকে সদর কোতোয়ালি আমলি আদালতে হাজির করা হয়েছে। 

ওসি জানান, শনিবার বিকেলে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার রানীপুকুর ইউপির নূরপুর বালাপাড়া গ্রাম থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়। প্রীতি পন্ডিত ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হুগলি জেলার কোতোয়ালি থানার ভাংত জাংলা গ্রামের মন্টু পন্ডিতের মেয়ে। তিনি গত ২৪ জুন যশোরের বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করে প্রেমিক মিলন মিয়ার গ্রামের বাড়ি রংপুর সদর উপজেলার সদ্যপুষ্কুরিণী ইউপির পালিচড়া ফাজিলখাঁ নয়াপুকুওে চলে আসেন। 

বিষয়টি এলাকায় জানাজানি হলে প্রীতিকে নিয়ে মিলন তার বন্ধু হাবিবুরের সহায়তায় পার্শ্ববর্তী রানীপুকুরে কাছে আত্মীয় লতিফুলের বাড়িতে গিয়ে আত্মগোপনে থাকার চেষ্টা করেন। পরে পুলিশ খবর পেয়ে সেখান থেকে তাদের তিনজনকে গ্রেফতার করেন। 

অবৈধভাবে সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে অনুপ্রবেশ করার দায়ে প্রীতি পন্ডিত পুলিশের হেফাজতে থানায় রাখা হয়েছে জানিয়ে সদর কোতয়ালি থানার উপপরিদর্শক জাহাঙ্গীর আলম জানান, গত ২৪ জুন ভারত থেকে যশোরের বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে অবৈধভাবে অনুপ্রবেশ করে রংপুরে আসেন প্রীতি। এরপর সে প্রেমিক মিলনের বাড়িতে বাড়িতে অবস্থান করছিল। 

বিষয়টি জানার পর অভিযানে নামে পুলিশ। পরে তাদের মিঠাপুকুর উপজেলার রানীপুকুর ইউপির নূরপুর বালাপাড়া গ্রামে আত্মীয় লতিফুল ইসলামের বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয়। প্রীতি বিনা পাসপোর্ট ও অনুমতি ছাড়া সীমান্ত পেরিয়ে বাংলাদেশে অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে সদর কোতোয়ালি থানায় একটি মামলা করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন। মামলার বাদী এসআই জাহাঙ্গীর আলম ভারতীয় তরুণীকে সেভ হোমে রাখার জন্য আমলি আদালতের বিচারকের কাছে আবেদন করেছেন।

– দিনাজপুর দর্পণ নিউজ ডেস্ক –